ঢাকা শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২২

Popular bangla online news portal

৭০০ বিলিয়ন ডলারের বিলে বাইডেনের স্বাক্ষর


নিউজ ডেস্ক
৫:০৯ - বুধবার, আগস্ট ১৭, ২০২২
৭০০ বিলিয়ন ডলারের বিলে বাইডেনের স্বাক্ষর

জলবায়ু পরিবর্তন ও স্বাস্থ্যসেবার খরচ মেটাতে ৭০০ বিলিয়ন বা ৭০ হাজার কোটি মার্কিন ডলারের একটি বিলে স্বাক্ষর করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। মূলত ধনীদের করের টাকায় জলবায়ু পরিবর্তন ও স্বাস্থ্যসেবার খরচ মেটাতে এই বিলে স্বক্ষর করেছেন তিনি।

এতে করে  ৭০০ বিলিয়ন ডলারের এই বিলটি আইনে পরিণত হয়েছে। বুধবার (১৭ আগস্ট) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ৭০ হাজার কোটি মার্কিন ডলারের একটি বিলে স্বাক্ষর করেছেন যার লক্ষ্য জলবায়ু পরিবর্তন এবং স্বাস্থ্যসেবা ব্যয় নির্বাহের পাশাপাশি প্রধানত ধনীদের ওপর কর বৃদ্ধি করা। এছাড়া এই আইনে প্রেসক্রিপশন ওষুধের দাম কমানোর জন্য কংগ্রেসের কয়েক দশকের প্রতিশ্রুতি কার্যকর করার ব্যবস্থাও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

বিবিসি বলছে, ডেমোক্র্যাটদের প্রথম পরিকল্পিত ৩.৫ ট্রিলিয়ন ডলারের প্যাকেজের চেয়ে চূড়ান্ত এই সংস্করণটি বেশ উদার। ক্ষমতায় আসার আগে এটি বাইডেনের অন্যতম প্রধান এজেন্ডা ছিল এবং বিলটি আইনে পরিণত হওয়ার এটি মধ্যবর্তী নির্বাচনের আগে তাকে রাজনৈতিক সুবিধা দিতে পারে।

মূলত আগামী নভেম্বরে যুক্তরাষ্ট্রে মধ্যবর্তী নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। মার্কিন ডেমোক্র্যাটরা আরও দুই বছরের জন্য কংগ্রেসের নিয়ন্ত্রণ বজায় রাখবে কি না সেই সিদ্ধান্ত সেসময় ভোটাররা নেবেন। তবে প্রেসিডেন্ট বাইডেন বিলটিকে স্বাগত জানিয়েছেন।

নতুন এই বিলের আওতায় জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে লড়াই করতে ৩৭৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করার কথা বলা হয়েছে। মূলত জলবায়ু পরিবর্তন ইস্যুতে ইতিহাসে এটিই মার্কিন ফেডারেল সরকারের সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিনিয়োগ।

অবশ্য ক্লাইমেট অ্যাকশন ট্র্যাকারের সঙ্গে যুক্ত বিজ্ঞানীদের একটি বিশ্লেষণ বলছে, এই বিলটি ভবিষ্যতের গ্লোবাল ওয়ার্মিং মোকাবিলায় ‘খুব বেশি নয়, আবার খুব কমও নয়’। এছাড়া নতুন এই বিলের আওতায় জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলায় সম্ভাব্য এই খরচের ফলে ২০৩০ সালের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের কার্বন নিঃসরণ ৪৪ শতাংশ কমবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এদিকে এই আইনে প্রেসক্রিপশন ওষুধের দাম কমানোর জন্য কংগ্রেসের কয়েক দশকের প্রতিশ্রুতি কার্যকর করার ব্যবস্থাও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। মূলত ৬৫ বছরের বেশি বয়সীদের জন্য মেডিকেয়ার স্বাস্থ্য বীমা কর্মসূচির অধীনে কিছু প্রেসক্রিপশন ওষুধের দাম কমানোর বিষয়ে আলোচনার সুযোগ রয়েছে।

একইসঙ্গে নির্দলীয় কংগ্রেসনাল বাজেট অফিসের অনুমান অনুসারে, নতুন এই আইন পরবর্তী দশকে শত শত বিলিয়ন ডলার সাশ্রয় করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এছাড়া এই বিলটি কর্পোরেশনগুলোর জন্য ন্যূনতম ১৫ শতাংশ কর নির্ধারণ করেছে। তবে ডেমোক্র্যাটরা প্রতিশ্রুতি দিয়েছে যে, বছরে ৪ লাখ মার্কিন ডলারের নিচে যাদের উপার্জন, এই আইন তাদের জন্য কোনো কর বৃদ্ধি করবে না।

তবে কংগ্রেসনাল বাজেট অফিস থেকে এই আইনের বিশ্লেষণে বলা হয়েছে, যেসব আমেরিকানরা বছরে ৪ লাখ মার্কিন ডলারের কম আয় করে এই আইনের ফলে তারা অতিরিক্ত ২০ বিলিয়ন ডলার ট্যাক্স প্রদান করবে।

এছাড়া সদ্য স্বাক্ষরিত এই বিলটিতে অভ্যন্তরীণ রাজস্ব পরিষেবার জন্য আরও কয়েক হাজার ট্যাক্স এজেন্ট নিয়োগের লক্ষ্যে প্রায় ৪৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।