নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার চনপাড়া এলাকায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষ রুহুল আমিনসহ তার লোকজন প্রবাসী আনারুল মিয়ার বাড়িতে হামলা চালায় ও বাড়িঘর ভাংচুর করে। বাঁধা দেওয়ায় প্রবাসীর মেয়ে সুমাইয়া আক্তার ও শাহিন মোল্লাকে পিটিয়ে আহত করে। এসময় প্রবাসীর মেয়েকে শ্লীলতাহানির ঘটনা ঘটায় প্রতিপক্ষরা।

আজ ১০ জুন বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রবাসীর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শাহিন মোল্লা বাদী হয়ে রূপগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

শাহিন মোল্লার লিখিত অভিযোগ থেকে জানা যায়, একই এলাকার রুহুল আমিন (২৬), মোঃ আমিনুল (২৪), মোঃ আরজুদা বেগম (৪৫), মোঃ শাহ আলম (৫৫), মোঃ মোহন (২৫) সহ অজ্ঞাত ২/৩ জনকে শাহিন মোল্লাদের বিরোধ চলে আসছিলো। ঐ বিরোধের জের ধরে বৃহস্পতিবার দুপুরে রুহুল আমিনসহ তার লোকজন রাম দা, চাপাতি, চাইনিজ কুড়াল, লোহর রডসহ দেশীয় অস্ত্রেস্ত্রে সজ্জিত প্রবাসী আনারুল মিয়ার বাড়িতে হামলা করে। পরে তার মেয়ে সুমাইয়া আক্তার (১৮) ও তার ভাতিজা শাহিন মোল্লা (৩৮) তাদের বাঁধা দিলে সুমাইয়া আক্তারকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে ও শ্লীলতাহানীর ঘটনা ঘটায়। শাহিন মোল্লা তার বোনকে বাঁচাতে এগিয়ে আসলে তাকেও পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।। তাদের ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে হামলাকারীরা চলে যায়। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ এফ এম সায়েদ বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। সুষ্ঠু তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।