দীর্ঘদিন ধরে গতানুগতিক পদ্ধতিতে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন-ভাতা দেওয়ার কারণে ভোগান্তি হচ্ছে শিক্ষকদের। তবে শিগগিরই এই সমস্যার স্থায়ী সমাধান করা হবে। শিক্ষকরা ইএফটি’র (ইলেক্ট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার) মাধ্যমে জিটুপি পদ্ধতিতে সরাসরি ব্যাংক অ্যাকাউন্টে বেতন-ভাতা পাবেন বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন।

সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন জানান, প্রাথমিকের শিক্ষকদের বেতন-ভাতা পাওয়ার ক্ষেত্রে যে সমস্যা হতো সেটি সমাধানে অনেকদিন ধরেই মন্ত্রণালয় কাজ করছিল। খুব দ্রুত বিষয়টি স্থায়ীভাবে সমাধান করা হচ্ছে। শিক্ষকদের বেতন ভাতা ইএফটির মাধ্যমে দেওয়ার জন্য অর্থ বিভাগের সঙ্গে কথা হয়েছে। শিগগিরই ইএফটির মাধ্যমে শিক্ষকদের ব্যাংক হিসাবে টাকা পৌঁছানোর ব্যবস্থা সম্পন্ন হবে।

উল্লেখ্য, সরকারি চাকরিজীবীদের বেতন-ভাতা দেওয়ার কথা রয়েছে কেন্দ্রীয়ভাবে ইএফটির মাধ্যমে। তবে কিছু ক্ষেত্রে এই ইএফটির মাধ্যমে ফান্ড ট্রান্সফারের ব্যবস্থা এখনও হয়নি। এরই মধ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শ্রেণির শিক্ষার্থীদের বৃত্তি কার্যক্রম চালু হয়েছে ইএফটির মাধ্যমে। পাশাপাশি বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষকদের বেতন-ভাতাও ইএফটির মাধ্যমে অ্যাকাউন্টে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।