কাঁচামরিচের কড়া ঝালে অস্থির কাঁচাবাজার। রাজধানীর বাজারে ২৫০ গ্রাম কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকায়। অর্থাৎ এক কেজি কাঁচামরিচের দাম পড়ছে ৩২০ টাকা। ভালোমানের আধা কেজি কাঁচা মরিচ ১৫০ টাকা এবং এক কেজি ৩০০ টাকায় বিক্রি করছেন অনেক ব্যবসায়ী

রাজধানীর কারওয়ানবাজার, রামপুরা, মালিবাগ, শান্তিনগর এবং খিলগাঁওয়ের বিভিন্ন বাজার ঘুরে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, বন্যায় কাঁচামরিচের খেতের ব্যাপক ক্ষতি হয়। যে কারণে জুলাই মাস থেকেই কাঁচামরিচের দাম চড়া। এখন বৃষ্টি কাঁচামরিচের খেতের আরেক দফা ক্ষতি হয়েছে। যে কারণে দাম নতুন করে বেড়ে গেছে।

বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা যায়, ভালো মানের ২৫০ গ্রাম কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকায়। আর নিম্ন মানের কাঁচামরিচের পোয়া বিক্রি হচ্ছে ৬০ থেকে ৭০ টাকায়।

এক ব্যবসায়ী জানান, গত শুক্রবার যে দামে মরিচ কিনেছিলাম, আজ কেজিতে তার থেকে ১০০ টাকা বেশি দিয়ে কিনতে হয়েছে। এই ৮০ টাকা পোয়া বিক্রি করলে লাভ তেমন হবে না। সকালে প্রথমদিকে কেউ কেউ কাঁচামরিচের পোয়া ১০০ টাকাও বিক্রি করেছেন।

অপর এক ব্যবসায়ী বলেন, গত সপ্তাহে এক পোয়া কাঁচামরিচ ৫০ টাকায় বিক্রি করেছি। আজ যে দামে কিনতে হয়েছে তাতে ৮০ টাকার নিচে পোয়া বিক্রি করা সম্ভব না। তবে আধা কেজি নিলে ১৫০ টাকা এবং এক কেজি নিলে ৩০০ টাকা রাখা যাবে।

কারওয়ানবাজারের এক ব্যবসায়ী বলেন, কাঁচামরিচের খেত সব শেষ। বন্যায় কাঁচামরিচের গাছ পচে যাওয়ার পর এখন বৃষ্টিতে আবার কাঁচামরিচের খেতের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। মূলত এ কারণেই কাঁচামরিচের দাম বেশি।

একজন সাধারণ ক্রেতা বলেন, কাঁচামরিচের পোয়া ৪০ টাকা হওয়ায় বেশি, সেখানে ৮০ টাকা পোয়া কিছুতেই স্বাভাবিক হতে পারে না। সংশ্লিষ্টের উচিত দ্রুত বাজার মনিটরিংয়ে নামা। কারণ শুধু কাঁচামরিচ না এখন সবকিছুর দাম অস্বাভাবিক।